Wednesday, October 4, 2023

৪২ মণের ‘বিগবস’ কিনলে মোটরসাইকেল ফ্রি দেওয়ার ঘোষণা মালিকের

ঠাকুরগাঁওয়ের হরিপুর উপজেলায় সাড়া ফেলেছে ৬ বছর বয়সী সাড়ে ৪২ মণ ওজনের বিশাল আকৃতির ষাঁড় ‘বিগবস’। কারণ ষাঁড়টি কিনলেই ১৬০ সিসি’র পালসার একটি মোটরসাইকেল মোটরসাইকেল ফ্রি পাওয়া যাবে।

আসন্ন কোরবানির ঈদ উপলক্ষে প্রস্তুত করা হয়েছে সাড়ে ৪২ মণ ওজনের ‘বিগবস’ নামের এই ষাঁড়টি। এটি লম্বায় ১০ ফিট ও উচ্চতায় ৫ ফিট ১০ ইঞ্চি। ষাঁড়টির দাম ধরা হয়েছে ৩৫ লাখ টাকা। বিশাল আকৃতির ষাঁড়টির মালিক আফিল উদ্দীনের বাড়ি জেলার হরিপুর উপজেলার ডাঙ্গীপাড়া ইউনিয়নের তালতলা গ্রামে। এরই মধ্যে উপজেলার সর্ববৃহৎ কোরবানির পশু হিসেবে স্থান করে নিয়েছে ‘বিগবস’।

ষাঁড়টির মালিক আফিল উদ্দীন জানান, গতবারে ‘বিগবস’কে কিনতে ২২ লাখ টাকা দাম বলেছিলেন স্থানীয় এক ক্রেতা। কাঙ্খিত দাম না পাওয়ায় বিক্রয় করেননি তিনি। এবার আশা করছেন কাঙ্খিত দামে বিক্রয় করতে পারবেন বিগবসকে।

তিনি জানান, বিশাল আকৃতির ষাড় ‘বিগবস’র প্রতিদিনের খাদ্য তালিকায় যোগান দিতে হয় দানাদার ও তরল খাদ্য হিসেবে খইল, ভুট্টা, বুট, ছোলার ভুসি, খড়, নেপিয়ার ঘাস ও কুঁড়া। পাশাপাশি খাওয়ানো হয় বিভিন্ন ফলমূলসহ বিভিন্ন পুষ্টিকর খাবার। এর জন্য প্রতিদিন ২ হাজার থেকে ২২’শ টাকা ব্যয় হয় খামারি মালিকের।

এই বিশাল আকৃতির ষাড়টিকে একপলক দেখার জন্য স্থানীয়রাসহ অনেক দূরদুরান্ত থেকে ছুটে আসছেন মানুষ। ষাঁড়ের স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিত করার জন্য রয়েছে সার্বক্ষণিক পশু চিকিৎসক।আর রাতে নিরাপত্তার জন্য থাকে নিবিড় নজরদারি। ঠাকুরগাঁওয়ে ৪২ মণ ওজনের ‘বিগবস’ কিনলে পালসার মোটরসাইকেল ফ্রি!

স্থানীয় বিজলি আক্তার নামে এক গৃহবধূ বলেন, নিজের সন্তানের মতো যত্ন করে ষাড়টিকে বড় করেছেন আফিল উদ্দিন ও তার স্ত্রী। তিনি আরও বলেন, তাদের দেখে আমাদের এখানকার অনেকে এভাবে গরু লালন পালন করার পরিকল্পনা করছে।

আফিল উদ্দিন বলেন, এলাকায় যে কয়টা ষাঁড় আছে, সেগুলোর তুলনায় আকারে অনেক বড় হওয়ায় তিনি ষাঁড়টির নাম রেখেছেন বিগবস। তিনি বলেন, ছয় বছর ধরে আদর-যত্নে ষাঁড়টিকে লালন করছি। বিগ বসের দাম কত জিজ্ঞেস করতেই আফিল উদ্দিন বলেন, বিগবসের ওজন ১৭’শ কেজি। তাই দাম চাচ্ছি ৩৫ লাখ টাকা।

তিনি আরও বলেন, এই দামে কিনলে বিগ বসের সঙ্গে ১৬০ সিসি’র পালসার একটি মোটরসাইকেল উপহার দেব। প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডা. মো. আবুল কালাম আজাদ বলেন, এমন বড় আকৃতির বা ওজনের দ্বিতীয় গরু জেলায় নেই।

তিনি আরও বলেন, গরুটিকে কোনো খারাপ মেডিসিন প্রয়োগ করা হয়নি। আমরা সবসময় গরুটিকে পরিদর্শন করে পরামর্শ প্রদান করে থাকি।-ইউএনবি

এই সম্পর্কিত আরও খবর

সর্বশেষ আপডেট