Wednesday, October 4, 2023

পরীমণি বলেন, এই মেয়ে কী চায়, এত্তো বড় সাহস

ঘটনাটা আসলে কী? এ আর নতুন করে বলার অপেক্ষা রাখে না চার অভিনয়শিল্পীর আপ’ত্তিকর ভিডিও ও ছবি নেটমাধ্যমে ছড়িয়ে গেছে। ঘুম থেকে উঠেই সকাল সকাল যারা ভার্চুয়াল জগতে প্রবেশ করেছেন তারা ধীরে ধীরে বুঝতে পেরেছেন কোনো কিছু একটা ঘটেছে। সবাই লিংক খুঁজে বেড়াচ্ছেন। আবার কেউ কেউ ছবি।

মধ্যরাতে মাত্র ১৭ মিনিটে অভিনেতা শরীফুল রাজের সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম থেকে ভাইরাল হয়। যদিও কিছুক্ষণ পরেই তা মুছে ফেলা হয়েছে। যেখানে সেকেন্ডে সেকেন্ডে বদলে যায় দুনিয়া সেখানে ১৭ মিনিট লম্বা এক সফর। হাতে হাতে চলে যায় সবার কাছে ভিডিও-ছবি। একাধিক সূত্র থেকে বের হয়ে আসে সেগুলো।

তবে ভিডিও-ছবি নিয়ে দীর্ঘ এক পোস্ট দিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এর ব্যাখ্যা দিয়েছেন অভিনেত্রী সুনেরাহ বিনতে কামাল। কিন্তু তার লেখায় নাম না থাকলেও পরীমণির দিকে যে অভিযোগের তির ছুড়ে মেরেছেন, তা আর কারও বোঝার বাকি নেই।

পরীমণিও ছেড়ে কথা বলার মেয়ে যে নন, তা তিনি ইতোমধ্যেই প্রকাশ করে দিয়েছেন। এ প্রসঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি সাংবাদিকদের জানান, ‘ওই মেয়েকে (সুনেরাহ) আমি চিনিই না। ওর সঙ্গে আমার কখনও কথা হয়নি। তাহলে কেন ও আমাকে নিয়ে আজেবাজে মন্তব্য করছে। রাজের ফেসবুক থেকে প্রকাশিত ভিডিওগুলো অনেকেই দেখেছেন। ওখানে ওর মুখের ভাষা কেমন ছিল। আর ওরা কি স্বাভাবিক ছিল। এটা কোন ধরনের বন্ধুত্ব? রাজের ফেসবুক হ্যাক হয়নি। এটি করেছে ওই মেয়েই! কারণ, রাজ ঘুমালে তার কোনো হুশ থাকে না।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমরা সংসার জীবন নিয়ে বেশ ভালোই ছিলাম। কিন্তু এটি অনেকের ভালো লাগছে না। তাই আমার সংসারের পেছনে লেগেছে তারা। তার কথা ও মাতলামি দেখেছেন? এবার বোঝেন। মানুষ মনে করে, দেশের সব ম’দ আমিই খাই! বাকিরা সবাই ধোয়া তুলসী পাতা। ওই মেয়ে হুমকি দিয়েছে, আই’নের ভয় দেখিয়েছে- আইন কি শুধু তার জন্যই। আমিও তাকে দেখে নেব, ধৈর্যের একটা সীমা আছে! আমার মনে হয় ও (সুনেরাহ) আমার সংসারটা ভাঙার চেষ্টা করছে। এই মেয়ে কী চায়, বেয়াদব মহিলা, কত্তবড় সাহস। রাজই তো আমার কাছে নাই, রাজের ফোন কই থেকে আসবে আমার কাছে। আর এগুলো আমি কেন করতে যাবো লেম জিনিসপত্র।’

নায়িকা বলেন, ‘এসব আজাইরা কথা মানুষ কই পায়। আমরা ভালো আছি, সুখেই আছি। আমি অভিনয় আর সংসার জীবন নিয়ে ভালো আছি- এটা কারও পছন্দ হচ্ছে না। তাই এসব কথা ছড়াচ্ছে। গেল কদিন ধরে ছবির প্রচারণার কারণে দম ফেলার সময় পাচ্ছি না। এর মধ্যে আবার উটকো ঝামেলা। আমাকে রাগালে এর পরিণাম ভালো হবে না!’

রাজ নাকি বাসায় ঠিকমতো ফেরে না আর আপনিও নাকি নিজ বাসায় থাকেন? এমন প্রশ্নের জবাবে বিশ্বসুন্দরী’খ্যাত এই চিত্রনায়িকা বলেন, ‘এটা তো রাজের পুরোনো স্বভাব। আর আমি দুই বাসাতেই থাকি। এখন নিজ বাসায় আছি। আর আমাদের সংসার যদি ভেঙে যায়, তাহলে এর পেছনে দায়ী হবে ওই মেয়ে। আমি এর শেষটা দেখে নিতে চাই।’

এই সম্পর্কিত আরও খবর

সর্বশেষ আপডেট