Saturday, February 24, 2024

এ ধরণের কাজ আগে কখনও করিনি : মিথিলা

ইতিমধ্যেই সবার মন জয় করে নিয়েছেন অ্যালেন স্বপন (নাসির উদ্দিন খান) ও শায়লা (রাফিয়াথ রশিদ মিথিলা)। ওয়েব সিরিজ ‘মাইশেলফ অ্যালেন স্বপন’ ইতিমধ্যেই দর্শকমহলে দারুণ সাড়া ফেলেছে। এই সিরিজে বেশ চ্যালেঞ্জিং একটি চরিত্রে অভিনয় করেছেন মিথিলা। এমন চরিত্রের জন্য বেশ কষ্ট করতে হয়েছে দুই বাংলার জনপ্রিয় এই অভিনেত্রীকে।

মিথিলার ভাষ্য, ‘আজ সবার মুখে মুখে শায়লা! এটা একজন অভিনেত্রী হিসেবে বেশ আনন্দের। এই চরিত্রের জন্য বেশ কষ্ট করতে হয়েছে আমাকে। এ ধরণের কাজ আগে কখনও করিনি। শায়লা হয়ে ওঠা আমার জন্য অনেক বড় চ্যালেঞ্জ ছিল। “মাইশেলফ অ্যালেন স্বপন” ক্যারিয়ারে নতুন একটা কাজ।’

শায়লার ভাষাগুলো আয়ত্ত করতে কতটুকু বেগ পেতে হয়েছে? এমন প্রশ্নে জবাবে তিনি বলেন, ‘আমি অনেক অঞ্চলের ভাষায় কথা বলতে পারি। তবে এই সিরিজে যে ভাষায় কথা বলেছি, তা নির্দিষ্ট কোন অঞ্চলের ভাষা না। শুটিংয়ের সময় কথাগুলো নিজের মধ্যে ধারণ করতে খুব একটা কষ্ট হয়নি। তবে মাথার মধ্যে বারবার ঘুরপাক খাচ্ছিল, এটা কোন অঞ্চলের ভাষা? পরে আমার মনে হয়েছে এই ভাষার সঙ্গে কুমিল্লার কিছুটা মিল আছে।

তবে এমন ভাষার কোন নাটকে বা সিনেমায় আগে কখনও সংলাপ বলিনি। আর আমার ক্যারিয়ারে নানারকম চরিত্র পেয়েছি, কিন্তু এমন চরিত্র এবারই প্রথম। শতভাগ চেষ্টা করেছি, শায়লা হয়ে উঠতে। চরিত্রটি প্রাণ দিতে অনেকদিন শায়লার ভেতরে ডুবে ছিলাম। কাজটি করে তৃপ্তি পেয়েছি। আর সব কষ্টই করেছি শায়লার জন্য।’

‘মাইশেলফ অ্যালেন স্বপন’ নিয়ে এমন সাড়া পাবেন, শুরুতে তা কি ভেবেছিলেন? ‘প্রথম যখন পরিচালক শিহাব শাহীন গল্পটি আমাকে শোনালেন, তখন মনে হয়েছিল এটি তো অ্যালেন স্বপনেকে ঘিরে। এখানে শায়লার কী আছে? পুরো স্ক্রিপ্ট পড়ার পর দেখলাম, এখানে শায়লারই অনেক কিছু করার আছে। গল্প দেখেই কাজটি ভিন্ন মনে হয়েছে। তাই এক কথাতেই রাজি হয়ে যাই। অভিনয়ের সময় নির্মাতা ও পুরো টিম যেভাবে কাজ করেছে, তাতে আমি সন্তুষ্ট। আর সেসময়ই মনে হয়েছে, সিরিজটি ভালো হচ্ছে।’

এই সম্পর্কিত আরও খবর

সর্বশেষ আপডেট