Wednesday, April 17, 2024

আমার জীবনে আর কখনো প্রেম আসবে না : পরীমণি

ভালোবেসে বিয়ে করলেও এক ছাদের নিচে খুব বেশিদিন থাকা হয়নি শরিফুল রাজ-পরিমণি জুটির। ঢালিউডের এই তারকা দম্পতির সংসারে প্রথম সন্তান আগমনের বছরখানেকের মধ্যেই বিচ্ছেদের পথে হাঁটেন রাজ-পরী।এরপর থেকে বর্তমানে সন্তানকে নিয়েই পরীমনির সকল ব্যস্ততা। নতুন করে নাকি আর প্রেম বা বিয়ের বিষয়েও ভাবছেন না এই অভিনেত্রী। সম্প্রতি আনন্দবাজারকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে এমনটাই জানিয়েছেন তিনি।

পরীমনি বলেন, আমার জীবনে আর কখনো প্রেম আসবে না, তা আমি লিখে দিতে পারি। এখন আমার জীবনে কোনো উটকো ঝামেলা নেই। কেন শুটিংয়ে দেরি হলো? শুটিংয়ে কী কী কাজ করেছি, কাজের ফাঁকে কী করেছি, এসব জবাব দেয়ার কোনো ঝট ঝামেলা পোহাতে হয় না। তবে আমার খাঁটি প্রেম হলো আমার ছেলে। আমার জীবনে যেমন ও ছাড়া কেউ নেই, তেমনি পদ্মর আমি ছাড়া কেউ নেই। আমরা এখন ভীষণ ভালো আছি।

এদিকে ওই সাক্ষাৎকারে সাবেক স্বামী শরিফুল রাজকে একহাত নেন পরীমনি। তিনি বলেন, আমার মনে হয় এটা সবার জানা উচিত। যে নিজের সন্তানের কোনো দায়িত্ব বহন করে না কিন্তু আমার বাচ্চা বলে বেড়ায় তাকে আমি ছেড়ে দেব না। যারা মা, তারা নিশ্চয় বুঝতে পারবেন আমি কোন জায়গা থেকে কথাগুলো বলছি।

ছেলের কোনো খোঁজখবর রাখেন না রাজ, এমনটা জানিয়ে এই নায়িকা বলেন, সে এখন পর্যন্ত আমার বাচ্চার একটা খোঁজ খবর নেয়নি। আমার বাচ্চার খোঁজ খবরও কেন নেবে? এটা তো আমার বাচ্চা। আমার বাচ্চার খোঁজ খবর এবং দায়িত্ব প্রথম থেকে আমিই নিয়েছি এবং আমারই থাকবে। এটার জন্য আর কাউকে দরকার নেই। আমি আর কারো নামই উচ্চারণ করতে চাই না। এই নামটার সঙ্গে এখন আর আমার কোনো রাগ, ক্ষোভ, অভিমান ছাড়া কিছুই নেই। ভালোবাসা, সম্মান তো দূরের কথা, কিছুই নেই।

সবশেষ শরিফুল রাজকে উদ্দেশ্য করে পরীমনি বলেন, যে মানুষটা আমার বাচ্চার বাবা তাকে আমি কোনোভাবেই অসম্মানিত করতে চাই না। কিন্তু যতটুকু অসম্মান তার প্রাপ্য সেটুকু আমি করব, সেটা থেকে তাকে কেউ বাঁচাতে পারব না। সেই অসম্মানটা পুরো দুনিয়া না, আমি তাকে করব। কারন সে এটা ডিজার্ভ করে।

এই সম্পর্কিত আরও খবর

সর্বশেষ আপডেট