নিউজিল্যান্ড সিরিজে আবারো নিজেকে প্রমাণ করতে চান রুবেল

গত মাসের ৪ তারিখে আসন্ন নিউজিল্যান্ড সিরিজের জন্য ২২ সদস্যের দল ঘোষণা করেছিলো বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। আর সেই দলে স্ট্যান্ডবাই তালিকায় রাখা হয়েছিলো পেস তারকা রুবেল হোসেনকে।

তবে এর ঠিক এক মাস পরেই ভাগ্য খুলে গেলো তাঁর। সদ্য শেষ হওয়া বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগে ইনজুরিতে পড়েন কিউইদের বিপক্ষে মুল দলে থাকা দুই পেসার রুবেল হোসেন এবং মোহাম্মদ শহীদ। আর এর ফলেই অপ্রত্যাশিত ভাবে মুল দলে ডাক পেয়ে গেলেন রুবেল।

শফিউলের পরিবর্তে কামরুল ইসলাম রাব্বি এবং শহীদের বদলি হিসেবে ডাক পেয়েছেন রুবেল হোসেন। আর এভাবে হুট করেই সফরটির জন্য ডাক পাওয়ায় উচ্ছ্বসিত রুবেল। সিরিজটিকে সামনে রেখে অপেক্ষায় আছেন জাতীয় দলের সাথে অস্ট্রেলিয়ায় অনুষ্ঠিত ক্যাম্পে যোগ দেয়ার জন্য।

আর এই সফরে আরও একবার নিজেকে প্রমাণ করতে চান জাতীয় দলের এই গতি তারকা। সোমবার মিরপুরের একাডেমি মাঠে রুবেল বলেন, ‘বিপিএলে আমি যেমন রিদমে ছিলাম, আমার কাছে মনে হয় আমি ঠিক আছি।

মনে হয় আগের জায়গায় আসতে পেরেছি। আসল হচ্ছে আত্মবিশ্বাস। কয়েকটা ম্যাচে যদি রিদম নিয়ে বোলিং করা যায় আত্মবিশ্বাস চলে আসে। আমার আত্মবিশ্বাস আল্লাহর রহমতে ভালো আছে। এটা এখন মাঠে প্রমাণ করতে হবে আমাকে।’

বিপিএলে রংপুর রাইডার্সের হয়ে খেলা রুবেল ১২ ম্যাচে ১৫ উইকেট শিকার করেছেন। আর জাতীয় দলে ফেরার জন্য এই পারফর্মেন্সই তাঁকে সাহায্য করেছে বলে মনে করেন তিনি। বাংলাদেশের হয়ে ২৩ টেস্ট, ৬৯ ওয়ানডে ১১ টি-টোয়েন্টি খেলা রুবেল সাংবাদিকদের এই প্রসঙ্গে বললেন,

‘বিপিএলটা আমার জন্য বড় একটা বিষয় ছিলো। ধারণা ছিলো ভালো পারফর্ম করলে হয়তো আমাকে নিতেও পারে। বিপিএলে ভালো করার চেষ্টা করেছি আমি। হয়তো ভালো পারফর্ম করার জন্য নির্বাচকরা আমাকে বিবেচনা করেছেন’-বলেন তিনি।

গত বছর অস্ট্রেলিয়া- নিউজিল্যান্ডে অনুষ্ঠিত ওয়ানডে বিশ্বকাপে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে বল হাতে ঝড় তুলেছিলেন রুবেল হোসেন। সেই ম্যাচে চার উইকেট নিয়ে ইংলিশদের পরাজিত করতে অন্যতম ভূমিকা পালন করেন তিনি। এ প্রসঙ্গে রুবেলের ভাষ্য,

‘নিউজিল্যান্ডের কন্ডিশনে আমি খেলেছি। তবে ওখানকার কন্ডিশনে এখন বোলিং করাটা চ্যালেঞ্জ। এই চ্যালেঞ্জটা আমাকে নিতে হবে। অস্ট্রেলিয়া, নিউজিল্যান্ড এবং ইংল্যান্ডে পেস বোলারদের জন্য সব সময় সহায়তা থাকে। আমরাও ওই জোর নিয়ে পেস বোলাররা যাচ্ছি।’

শেষ মুহূর্তে দলে জায়গা পাওয়ায় নিজের লক্ষ্য কি থাকবে এমন প্রশ্নের জবাবে টাইগার এই তারকা পেসার উত্তর দিলেন, ‘আল্লাহর রহমতে এখন আমি যাচ্ছি। যে কয়দিন অস্ট্রেলিয়াতে থাকব ভালোমতো অনুশীলন করবো মনোযোগ দিয়ে।

নিউজিল্যান্ডে ম্যাচ খেলার সুযোগ পেলে অবশ্যই ভালো খেলার চেষ্টা করবো। আমি যেটাতে সুযোগ পাই আমাকে পারফর্ম করতে হবে। আমি আমার সেরা পারফরম্যান্স মাঠে দেখাতে চাই।’–cricfrenzy